শিরোনাম
টি-টোয়েন্টি অলরাউন্ডার র‌্যাংকিংয়ে দুই ধাপ এগলো সাকিব সমুদ্র বন্দরসমূহে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত করোনা আক্রান্ত হয়ে একজনের মৃত্যু ৭ দিনে পদ্মা সেতুতে টোল আদায় ২৫ কোটি টাকা সেন্টমার্টিন দ্বীপ নিয়ে গুজবে বিভ্রান্ত হবেন না: আইএসপিআর নেপালকে হারিয়ে সুপার এইটে টাইগাররা ত্যাগের চেতনায় মানুষের কল্যাণে কাজ করুন: প্রধানমন্ত্রী ঈদের দিন ঢাকাসহ পাঁচ বিভাগে বৃষ্টির আভাস বোট ক্লাবের সভাপতির পদ ছাড়লেন বেনজীর জাতীয় ঈদগাহে প্রধান জামাত সকাল সাড়ে ৭টায় ক্যানসার আক্রান্তের পর প্রথমবার জনসম্মুখে ব্রিটিশ রাজবধূ ক্যাথরিন সেন্টমার্টিনে মিয়ানমারের গোলাগুলি, প্রয়োজনে জবাব দেয়া হবে : কাদের পদ্মা সেতুতে ৫ কোটি টাকা টোল আদায় সবুজ বাংলাদেশ গড়ে তোলার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর ঈদের দিন কেমন থাকবে আবহাওয়া
শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ০৫:১৮ পূর্বাহ্ন

লক্ষ্য অর্জন না হওয়া পর্যন্ত অভিযান চলবে: রুশ প্রতিরক্ষামন্ত্রী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক / ২১০ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ১ মার্চ, ২০২২

লক্ষ্য পূরণ না হওয়া পর্যন্ত ইউক্রেনে সামরিক অভিযান জারি রাখার ঘোষণা দিয়েছেন রাশিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী সের্গেই শোইগু।

মঙ্গলবার মস্কোতে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের দপ্তরে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘ইউক্রেনে রুশ অভিযানের উদ্দেশ্য দেশটিকে দখল করা নয়, বরং পশ্চিমা দেশগুলোর কারণে ইউক্রেনের ওপর যে সামরিক হুমকির ‍সৃষ্টি হয়েছে, তা থেকে সেখানকার জনগণকে মুক্ত করা এবং দেশটির  ক্ষমতাসীন নাৎসীপন্থী শাসকগোষ্ঠীকে অপসারণ।

এই দুটি লক্ষ্য পূরণ না হওয়া পর্যন্ত অভিযান চলবে বলেও জানান তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে রুশ বাহিনীর প্রশংসা করে প্রতিরক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের প্রতিটি সেনা সদস্য যুদ্ধক্ষেত্রে বীরত্ব, সাহসিকতা, বিবেক ও পেশাদারিত্বের পরিচয় দিচ্ছে। আমরা তাদের আন্তরিক অভিনন্দন ও প্রশংসা জানাচ্ছি।’

মঙ্গলবারের সংবাদ সম্মেলনে খারকিভে হতাহতের সংখ্যা বৃদ্ধির জন্য ইউক্রেনের সরকারকে দায়ী করেন রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী। এ সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘ইউক্রেনের সরকার নিজেদের গদি বাঁচাতে সেখানকার সাধারণ জনগণকে ঢাল হিসেবে ব্যবাহার করছে এবং আবাসিক এলাকা, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রভৃতি এলাকা থেকে রুশ বাহিনীর ওপর হামলা চালাচ্ছে।’

‘রুশ অভিযানের লক্ষ্য ইউক্রেনের সাধারণ জনগণ নয়। কিন্তু ইউক্রেনের সরকারের নীতির কারণে দেশটির বেসামরিক লোকজন ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন।’

দীর্ঘ দুই মাস ইউক্রেন সীমান্তে প্রায় ২ লাখ সেনা মোতায়েন রাখার পর গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে সেনা অভিযান শুরুর নির্দেশ দেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। এর পরপরই রাজধানী কিয়েভসহ ইউক্রেনের বিভিন্ন শহরে হামলা শুরু করে রুশ বাহিনী।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ