শিরোনাম
প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকের পর জেলেনস্কির টুইট বিএনপি করলেও যে বিষয়ে আপত্তি নেই শামীম ওসমানের শততম ছক্কার মাইলফলকে মুশফিক ক্ষমতায় গেলে প্রতিশোধ নিতে চান না ইমরান খান মেট্রোরেল চলাচল বন্ধ ছিল ১ ঘণ্টা স্বামী-স্ত্রীর বয়সের ব্যবধান কত হওয়া উচিত কচুয়ায় অটোরিক্সা চালক সাব্বির হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার ৯ নেদারল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে শেখ হাসিনার দ্বিপাক্ষিক বৈঠক ভাসানচরে পৌঁছালো আরও ১ হাজার ৫২৭ রোহিঙ্গা ইসরায়েলকে অস্ত্র সরবরাহ বন্ধ করতে ইইউ’র আহ্বান কোস্ট গার্ড আধুনিকায়নে ব্যাপক পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে সরকার: রাষ্ট্রপতি একুশে পদক পাচ্ছেন ২১ বিশিষ্ট ব্যক্তি বছরের ব্যবধানে বেড়েছে খেলাপি ঋণ গুম-খুন নিয়ে মিথ্যাচার করছে বিএনপি: কাদের সীমান্তে অনুপ্রবেশ ঠেকাতে সতর্ক বিজিবি
বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৪:৩৯ পূর্বাহ্ন

চাঁদপুরের ৫ আসনেই নৌকার প্রার্থীদের নিরঙ্কুশ বিজয়

নিজস্ব প্রতিবেদক / ১৭ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : সোমবার, ৮ জানুয়ারী, ২০২৪

চাঁদপুর জেলার ৫টি আসনে সকল জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে বিজয়ী হয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকার প্রার্থীরা। এর মধ্যে চাঁদপুর-১ আসনে প্রথমবারের মতো সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন ড. সেলিম মাহমুদ, চাঁদপুর-২ আসনের এমপি পদে ফিরেছেন মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া (বীর বিক্রম), চাঁদপুর-৩ আসনে টানা চতুর্থবারের মতো বিজয়ী হয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি, চাঁদপুর-৪ আসনে পুনরায় নির্বাচিত হয়েছেন জাতীয় প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি মুহম্মদ শফিকুর রহমান এবং চাঁদপুর-৫ আসনে পঞ্চমবারের মতো নৌকা প্রতীকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন মেজর অব. রফিকুল ইসলাম (বীর উত্তম)।

চাঁদপুর জেলা প্রশাসক ও জেলা রির্টানিং কর্মকর্তা কামরুল হাসান রাতে নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা করেন।

এ নির্বাচনে চাঁদপুরের পাঁচটি আসনে প্রাপ্ত ফলাফলে দেখা যায়, চাঁদপুর-১ (কচুয়া) আসনে নৌকা প্রতীকে ১ লাখ ৫১ হাজার ৩০৭ ভোট পেয়ে প্রথমবারের মতো সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন নৌকার প্রার্থী আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক ড. সেলিম মাহমুদ। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশের মো. সেলিম প্রধান চেয়ার প্রতীকে পেয়েছেন ৫ হাজার ৭৭৯, জাসদের সাইফুল ইসলাম মশাল প্রতীকে পেয়েছেন ৩ হাজার ৮২১ ভোট।

চাঁদপুর-২ (মতলব উত্তর-দক্ষিণ) আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী (নৌকা প্রতীক) মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া ১ লাখ ৮৫ হাজার ৯৯৯ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী এম ইসফাক আহসান পেয়েছেন ২১ হাজার ৩৩৫ ভোট। এ ছাড়াও জাতীয় পার্টির লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে মো. এমরান হোসেন মিয়া পেয়েছেন ১ হাজার ২৬৫ ভোট, বাংলাদেশ সুপ্রীম পার্টির প্রার্থী একতারা প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ৯৫৮ ভোট, বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ) মশাল প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ৫৮৭ ভোট।

চাঁদপুর-৩ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে তিনবারের সাবেক এমপি ও শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি নৌকা প্রতীকে ১ লাখ ৮ হাজার ১৬৬ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও সাবেক এমপি ড. মোহাম্মদ শামছুল হক ভূঁইয়া ঈগল প্রতীকে পেয়েছেন ২৪ হাজার ১৯৭ ভোট। এ আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. রেদওয়ান খান (ট্রাক) পেয়েছেন ১ হাজার ২৩৪ ভোট, বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্ট আবু জাফর মো. মাইনুদ্দিন (মোমবাতি) পেয়েছে ৭৩৩ ভোট, জাকের পার্টির মো. কাওছার মোল্লা (গোলাপ ফুল) ১ হাজার ৪৩৭ ভোট, জাতীয় পার্টির মো. মহসিন খান (লাঙ্গল) ৮২৮ ভোট, বাংলাদেশ তরীকত ফেডারেশনের মোহাম্মদ মিজানুর রহমান (ফুলের মালা) প্রতীকে পেয়েছেন ৩৪৩ ভোট।

চাঁদপুর-৪ আসনে নৌকা প্রতীকে ৩৬ হাজার ৪৫৮ ভোট পেয়ে আবারও নির্বাচিত হয়েছেন বর্তমান এমপি আওয়ামী লীগের প্রার্থী মুহম্মদ শফিকুর রহমান। এ আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী সাবেক এমপি ড. মোহাম্মদ শামছুল হক ভূঁইয়া পেয়েছেন ৩৫ হাজার ৪২৫ ভোট। এ ছাড়া স্বতন্ত্র প্রার্থী জালাল আহমেদ (ট্রাক) পেয়েছেন ১৮ হাজার ৭৬০ ভোট, বিএনএম’র প্রার্থী ড. মো. শাহজাহান (নোঙর) পেয়েছেন ১ হাজার ৭৪ ভোট, জাতীয় পার্টির সাজ্জাদ রশিদ (লাঙ্গল) ৫৯০ ভোট, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির আবদুল গনি (আম) ২০৮ ভোট, বাংলাদেশ তরীকত ফেডারেশনের বাকী বিল্লাহ মিশকাত চৌধুরী (ফুলের মালা) ২০১ ভোট, তৃণমুল বিএনপির মো. আবদুল কাদির তালুকদার (সোনালি আঁশ) ৩৬০ ভোট।

চাঁদপুর-৫ (হাজীগঞ্জ ও শাহারাস্তি) আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও বর্তমান এমপি মেজর অব. রফিকুল ইসলাম বীর উত্তম নৌকা প্রতীকে ৮৩ হাজার ২২৭ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গাজী মাঈনুদ্দিন ঈগল প্রতীকে পেয়েছেন ৩৮ হাজার ৬৩৬ ভোট, স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ সফিকুল আলম (ট্রাক) ২২ হাজার ৫৩৫ ভোট, ইসলামিক ফ্রন্টের সৈয়দ বাহাদুর শাহ মুজাদ্দেদী (চেয়ার) ৭ হাজার ১৪৪ ভোট, বাংলাদেশ সংস্কৃতিক মুক্তিজোটের আক্তার হোসেন (ছড়ি) ১৩৭ ভোট, বাংলাদেশ তরীকত ফেডারেশনের বাকী বিল্লাহ মিশকাত চৌধুরী (ফুলের মালা) পেয়েছেন ৫৫৬ ভোট ও মনির হোসেন জাশদ (মশাল) ৩৮০ ভোট।

উল্লেখ্য, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চাঁদপুর জেলার ৭০০টি ভোটকেন্দ্রে ভোট গ্রহণ হয় সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। জেলার ৮টি উপজেলা ও ৭টি পৌর এলাকার ৫ সংসদীয় আসনে মোট ভোটার রয়েছেন ২১ লাখ ৫৬ হাজার ৬০৯ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ১১ লাখ ১২ হাজার ৫৭৭ জন এবং নারী ভোটার ১০ লাখ ৪৪ হাজার ৩২ জন এবং হিজড়া ভোটার রয়েছেন ৬ জন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ