শিরোনাম
২০২৩-২৪ অর্থবছরের সম্পূরক বাজেট পাস দিল্লিতে শেখ হাসিনার সঙ্গে সোনিয়া গান্ধীর সাক্ষাৎ বিআরটিসির ঈদ স্পেশাল সার্ভিস শুরু বৃহস্পতিবার সৌদি পৌঁছেছেন ৭৬ হাজার ৩২৫ হজযাত্রী প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে সব দলকে আমন্ত্রণ জানাবে আওয়ামী লীগ রোহিঙ্গা ক্যাম্পে সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত ৩ অল্পের জন্য রক্ষা পেলেন ট্রেনের ৩০০ যাত্রী বেনাপোলে দুর্বৃত্তের কোপে গুরুতর আহত রাজস্ব কর্মকর্তা বেনজীরের রিসোর্ট নিয়ন্ত্রণে নিলো প্রশাসন নরেন্দ্র মোদিকে নতুন সরকার গঠনের অনুমতি দিলেন রাষ্ট্রপতি নয়াদিল্লি পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী গাজীপুরে বাস-অটোরিকশা মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ২ দৈনিক আমার সংবাদের এক যুগপূর্তি অনুষ্ঠিত ৫১২ আসনের চূড়ান্ত ফল ঘোষণা এশিয়ায় ইন্টারনেট ব্যবহারে পিছিয়ে বাংলাদেশের নারীরা
বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ১২:৩৪ পূর্বাহ্ন

তিন দিন সারা দেশেই থাকবে বৃষ্টি

দর্পণ ডেস্ক / ২৬১ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : রবিবার, ৪ জুলাই, ২০২১

আগামী তিন দিন প্রায় সারা দেশেই বৃষ্টির প্রবণতা বাড়তে পারে। এর মধ্যে রংপুর, রাজশাহী, ময়মনসিংহ, সিলেট, বরিশাল ও খুলনা বিভাগের অনেক জায়গায় এবং ঢাকা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও বিক্ষপ্তিভাবে মাঝারি ধরনের ভারি থেকে ভারি বর্ষণ হতে পারে।

রোববার আবহাওয়া অধিদপ্তর (বিএমডি) এসব তথ্য জানিয়েছে।

আবহাওয়া অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে, স্বাভাবিকভাবে দেশে জুন মাসে বৃষ্টিপাত হওয়ার কথা ৪৪০ মিলিমিটার। কিন্তু এ বছর রেকর্ড ৫১৭ দশমিক ৯ মিলিমিটার। স্বাভাবিকের চেয়ে এই হার প্রায় ১৮ শতাংশ বেশি। অন্যদিকে এ মাসে গড়ে ১৮ দিন বৃষ্টির দেখা পাওয়ার কথা। কিন্তু ৩০ দিনই বৃষ্টি হয়েছে। এই অতি বৃষ্টির কারণে নদ-নদীগুলো আগে থেকেই টইটম্বুর হয়ে আছে। ফলে গত চার দিন ধরে টানা বৃষ্টি দেশের বিভিন্ন অঞ্চলকে বন্যার ঝুঁকিতে ফেলেছে। শুধু তাই নয়, ইতোমধ্যে দেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চল ও দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে একদফা স্বল্প স্থায়ী বন্যা হয়ে গেছে। এতে সংশ্লিষ্ট এলাকার নিম্নাঞ্চল  চলে গেছে পানির নিচে। বিদ্যমান পরিস্থিতিতে দেশের উত্তরাঞ্চলে দু’তিন দিনের মধ্যে বন্যা শুরু হতে পারে। সাগর পানে পানি নেমে যাওয়ার গতি বেড়ে যাওয়ায় উত্তর-পূর্বাঞ্চলের অনেক স্থানে বেড়েছে নদীভাঙন।

এখন যে বৃষ্টি হচ্ছে, তার প্রকোপ ও তীব্রতা আগামী তিন দিনে আরও বেড়ে যেতে পারে। অতি বৃষ্টি চলছে ভারতের পূর্বাঞ্চলীয় বিভিন্ন রাজ্যে। সেই পানিও আসছে ব্রহ্মপুত্র-যমুনা এবং মেঘনা অববাহিকা  হয়ে বাংলাদেশে।

এ ব্যাপারে বুয়েটের পানি ও বন্যা ব্যবস্থাপনা ইনস্টিটিউটের অধ্যাপক ড. একেএম সাইফুল ইসলাম যুগান্তরকে বলেন, বর্ষা মৌসুমে বৃষ্টি হবে-এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু তা যদি অতিবৃষ্টি হয় তখন বন্যা পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়। নদীতে যে বন্যা তার ৯৩ শতাংশ পানির উত্স উজানের দেশগুলো। ভারত, নেপাল, চীন ও ভুটান থেকে আসে এই পানি। এই পানি বাংলাদেশে বন্যার প্রধান কারণ। দেশের ভেতরের বৃষ্টি নদীর বন্যার ওপর তেমন একটা প্রভাব ফেলে না। এটা নগরবন্যার কারণ হতে পারে। তিনি বলেন, আবহাওয়া পরিস্থিতি সময়ের সাথে পরিবর্তন হতে পারে। দেশি-বিদেশি বিভিন্ন আবহাওয়া সংস্থার গত কয়েক দিনের কম্পিউটার মডেল প্রায় দেড় হাজার মিলিমিটার পর্যন্ত বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস দিয়েছিল। এখন একটু কম দেখাচ্ছে। ৫ থেকে ৮শ’ মিলিমিটার বৃষ্টি আছে। কিন্তু মেৌসুম সক্রিয় থাকায় বৃষ্টির পরিমাণ যে বাড়বে না তা এখনই বলা যাচ্ছে না। বিদ্যমান পরিস্থিতিতে ৭-৮ জুলাই উত্তরাঞ্চলের নদীগুলো বিপদসীমা পার করতে পারে। স্বল্প থেকে মধ্যমেয়াদি বন্যা হতে পারে। (তথ্যসূত্র: যুগান্তর)


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ