শিরোনাম
২০২৩-২৪ অর্থবছরের সম্পূরক বাজেট পাস দিল্লিতে শেখ হাসিনার সঙ্গে সোনিয়া গান্ধীর সাক্ষাৎ বিআরটিসির ঈদ স্পেশাল সার্ভিস শুরু বৃহস্পতিবার সৌদি পৌঁছেছেন ৭৬ হাজার ৩২৫ হজযাত্রী প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে সব দলকে আমন্ত্রণ জানাবে আওয়ামী লীগ রোহিঙ্গা ক্যাম্পে সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত ৩ অল্পের জন্য রক্ষা পেলেন ট্রেনের ৩০০ যাত্রী বেনাপোলে দুর্বৃত্তের কোপে গুরুতর আহত রাজস্ব কর্মকর্তা বেনজীরের রিসোর্ট নিয়ন্ত্রণে নিলো প্রশাসন নরেন্দ্র মোদিকে নতুন সরকার গঠনের অনুমতি দিলেন রাষ্ট্রপতি নয়াদিল্লি পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী গাজীপুরে বাস-অটোরিকশা মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ২ দৈনিক আমার সংবাদের এক যুগপূর্তি অনুষ্ঠিত ৫১২ আসনের চূড়ান্ত ফল ঘোষণা এশিয়ায় ইন্টারনেট ব্যবহারে পিছিয়ে বাংলাদেশের নারীরা
বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ০১:৩৭ পূর্বাহ্ন

মতলবে ১০০ কোটি টাকা ব্যয়ে শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং সেন্টার নির্মান

মো: কামরুজ্জামান হারুন, মতলব (উ:) চাঁদপুর / ২৭১ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : শনিবার, ২৯ মে, ২০২১

চাঁদপুরের মতলবে শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং এন্ড ইনকিউবেশন সেন্টারের ডিজিটাল সার্ভে পরিদর্শন ও মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শুক্রবার (২৮ মে) সকালে উপজেলার উদ্দমদী পাম্প হাউস মাঠে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এর আগে ধনাগোদা নদী সংলগ্ন শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং এন্ড ইনকিবেশন সেন্টারের প্রস্তাবিত স্থান ও ডিজিটাল সার্ভে কার্যক্রম পরিদর্শন করেন আলহাজ্ব অ্যাড. নুরুল আমিন রুহুল এমপি, শেখ রাসেল আইটি ট্রেনিং এন্ড ইনকিউবেশন সেন্টারের প্রকল্প পরিচালক একেএম আব্দুল্লাহ খান, আইসিটি প্রতিমন্ত্রীর একান্ত সচিব সাইফুল ইসলাম ও উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তাবৃন্দ।

পরিদর্শন শেষে এমপি আলহাজ্ব নুরুল আমিন রুহুল বলেন, বর্তমান যুগ তথ্য প্রযুক্তির যুগ। বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে তথ্য প্রযুক্তির বিকল্প নেই। মতলবে এই প্রকল্পটি বাস্তবায়ন হলে বেকারত্ব দূর হবে। এসএসসি ও এইচএসসি পাশ তরুণরা আইটি ট্রেনিং নিয়ে বেকারত্ব দুর করতে পারবে। তাই আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীর সাথে কথা বলে দ্রুত কাজটি বাস্তবায়নের উদ্যোগ নেই।

এমপি আরও বলেন, এই প্রকল্পটি ছিল চারতলা বিশিষ্ট। পরে আমি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলকের সঙ্গে কথা বলে ছয়তলা বিশিষ্ট করি এবং প্রকল্পের ব্যয় বেড়ে হয় ১০০ কোটি টাকা। আগামি দিনে এই প্রকল্পের মাধ্যমে মতলববাসীর সমৃদ্ধশালী হওয়ার আশা ব্যক্ত করেন তিনি।

প্রকল্প পরিচালক একেএম আব্দুল্লাহ খান বলেন, আইসিটি পার্ক সরকারের একটি অন্যতম প্রকল্প। এ প্রকল্প বাস্তবায়নে দ্রুত কাজ চলছে। ইতোমধ্যে একনেকে সভায় পাশ হওয়ার পর ডিজিটাল সার্ভে বিষয়ক কার্যক্রম চলছে। এরপর আর্কিটেক্ট এর কাজ হবে। তারপর প্রকল্পটি নিজস্ব রূপ নিবে। আমি আশা করি আগামী দুই বছরের মধ্যে প্রকল্প দৃশ্যমান হবে।

উপসচিব সাইফুল ইসলাম বলেন, এই প্রকল্পটি আগে মাননীয় প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক পরিদর্শন করে গেছেন। তখন তিনি জমি নির্ধারণ করে গেছেন। তারপর থেকেই প্রকল্পটির কাজ শুরু করে সরকার। আমরা আশা করি দ্রুতই প্রকল্পটির কাজ বাস্তবায়ন হবে।

মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন এমপি অ্যাড. নুরুল আমিন রুহুল।

মতলব দক্ষিণ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফাহমিদা হকের সভাপতিত্বে ও ফতেপুর পশ্চিম ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সরকার মো. আলাউদ্দিনের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন- শেখ রাসেল আইটি ট্রেনিং এন্ড ইনকিউবেশন সেন্টারের প্রকল্প পরিচালক একেএম আব্দুল্লাহ খান, আইসিটি প্রতিমন্ত্রীর একান্ত সচিব সাইফুল ইসলাম, মতলব উত্তর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা এমএ কুদ্দুস, মতলব দক্ষিণ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বিএইচ কবির আহমেদ, মতলব উত্তর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা গাজী শরিফুল হাসান, কৃষি ব্যাংক কর্মকর্তা আবু জাফর মহিউদ্দিন, মতলব দক্ষিণ থানার ওসি মহিউদ্দিন মিয়া, মতলব দক্ষিণ উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ফেরদৌসী বেগম বুলু, ভাইস চেয়ারম্যান মবিন সুজন, মতলব পৌরসভার মেয়র আওলাদ হোসেন লিটন প্রমুখ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ